Internet ব্যবহারের সবচাইতে জনপ্রিয় মাধ্যম হল WiFi Network । প্রায় সব WiFi নেটওয়ার্কই Password Protected  থাকে। WiFi Password Hack করার জন্য অনেকেই Google বা Youtube এ Search দিয়ে থাকে ।  How to hack WiFi অথবা  Hack Wifi Password এই টাইপের Search মাসে কয়েক লক্ষ বার Google বা You Tube এ  করতে দেখা যায় ।  এই সার্চের পরিমান দেখেই ধারনা করা যায় অনেকেই WiFi  Hack  করতে ইচ্ছুক বা হ্যাক করার চেষ্টা করছে। এখন  WiFi  Network কি আসলে  হ্যাক করা সম্ভব? সম্ভব হলে তা কিভাবে সম্ভব আর সম্ভব না হলে কেন সম্ভব না?

WiFi হ্যাক করা যায় বা করা যায় না এর সঠিক কোন উত্তর নাই । WiFi Password মূলত তিন ধরনের ইনক্রিপশন ব্যবহার করা হয়। WIFI DEVICE এ  সর্বপ্রথম WEP সিকিউরিটি চালু করা হয় এর ইনক্রিপশন সিস্টেম ছিল মাত্র 64 বিটের। যার ফলে এই সিকিউরিটি খুব সহজেই Hack করা সম্ভব ছিল। ২০০৬ এর দিকে  WPA নামে একটি নতুন WiFi Security  চালু  হয়। WEP এর চাইতে WPA ছিল বেশি শক্তিশালী।

তারপর WPA2 নামে আরেকটি নতুন Security System Release হয়।

এটি পূর্বের সকল সিকিউরিটি গুলো থেকে More Advance  এবং Incription Standard ও তুলনামূলক জটিল। বর্তমানে WPA2 এর সর্বশেষ সংস্করন WPA2-PSK প্রায় সব WiFi  Router এ ব্যবহার করা হয়, যা হ্যাকিং প্রায় অসম্ভব। কিন্তু যেসকল WiFi NETWORK এখনও WEP ইনক্রিপশন ব্যবহার করছে সেইগুলো হ্যাক করা যেতে পারে। কিন্তু WPA বা WPA2 inscription  ব্যবহৃত WiFi NETWORK গুলো হ্যাক করা প্রায় অসম্ভব। তবে বর্তমানে প্রতিটা রাউটারের WPS নামের একটি option default  ভাবে চালু করা থাকে। WPS হল পাসওয়ার্ডের একটি বিকল্প পদ্ধতি।  পাসওয়ার্ড ছাড়াও রাউটারের WPS Key দিয়ে WiFi এ যুক্ত হতে পারবেন। এই Key ৭-৮ ডিজিটের হয়ে থাকে। অনেক মোবাইল App আছে যা সম্ভাব্য WPS Key গুলো দিয়ে WiFi এ কানেক্ট করার চেষ্টা করে। কিন্তু এর সম্ভাবনা মাত্র ৫% এর ও কম। Brute Force দিয়েও এই Key খুজে বের করা সম্ভব। কিন্তু এটি অনেক সময় সাপেক্ষ। ৭-৮ অংক বিশিষ্ট সকল সংখ্যা এক এক করে ট্রাই করে। কম্পিউটার দিয়েও এই পদ্ধতিতে PASSWORD খুজে বের করতে অনেক  সময় লেগে যেতে পারে।WPS বাটন নামে রাউটারে একটি বাটন থাকে। এই বাটনে চাপ দিলে কিছু সময়ের জন্য PASSWORD ছাড়াই WiFi এ কানেক্ট হওয়া যায়। যদি আপনার অজান্তেই কেউ এই বাটনে চাপ দেয় তাহলে সে আপনার WiFi কানেক্ট হতে পাববে খুব সহজেই।তবে নিজের রাউটার এর SECURITY এবং FIRMAWRE  সব সময় Update রাখলে  কাজটা অনেক  দুরুহ । WPS অপশনটি রাউটারের Admin Panel থেকে বন্ধ করে করে রাখা উচিত ।পাসওয়ার্ড ১০-১৫ অক্ষরে রাখতে হবে।বর্ণমালা, নম্বর ও স্পেশাল ক্যারেক্টার এর সমন্বয় PASSWORD কে আরও শক্তিশালী করে।এক কথায় বলতে গেলে WPA বা WPA2 সিকিউরিটি দেওয়া থাকলে সেই WiFi হ্যাক হওয়ার সম্ভাবনা নেই বললেই চলে।